বহু আয়াত মুহম্মদের সমস্যার সমাধানের উদ্দেশ্যে!

কুরানের বহু আয়াত রয়েছে শূধু মাত্র নবী মুহম্মদের ব্যাক্তিগত সমস্যার সমাধানের উদ্দেশ্যে (৩৩:২৮-৩০, ৩৩:৩২-৩৩, ৩৩:৩৭-৩৮, ৩৩:৫০-৫৩, ৩৩:৫৫-৫৯, ৬৬:১-৫) ? সমগ্র মানব জাতির জন্যে রচিত জীবন বিধানে নবীর জন্যে আল্লাহর এধরনের ‘বিশেষ’ মাথা ব্যাথা থাকবে কেন ?

জবাব :

প্রথমত, ‘সমগ্র মানবজাতির’ মধ্যে নবী এবং তাঁর পরিবার অন্তর্ভুক্ত।

দ্বিতীয়ত, নবীর পরিবারের জন্য কিছু বিশেষ নিয়ম রয়েছে যেটা অন্য বিশ্বাসীদের জন্য প্রযোজ্য নয়। একারণে নবী বেঁচে থাকার সময় যে হাজার হাজার মুসলমানরা ছিল তাদেরকে কিছু জরুরি নির্দেশ দেবার জন্য এই আয়াতগুলো দেওয়া হয়েছে।

তৃতীয়ত, মানুষ যেন নবীর পরিবারের জন্য কোনটা অত্যাবশ্যকীয় এবং অন্যদের জন্য কোনটা অত্যাবশ্যকীয় নয় তা নিয়ে ঘোল পাকিয়ে না ফেলে একারণে কু’রআনে তা রেকর্ড করা হয়েছে। যেমন শুধুমাত্র নবীদের স্ত্রীদেরকে, তাদের নিরপত্তার জন্য, তাদেরকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে একটি পর্দার পেছনে থেকে অন্যদের সাথে কথা বলতে। এই নির্দেশ অন্য কোন মহিলার জন্য প্রযোজ্য নয়।